আমাদের মেইল করুন abasonbarta2016@gmail.com
উত্তরায় মার্কেটসহ ২ শতাধিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

রাজধানীর উত্তরায় এবার কাঁচাবাজার ও মার্কেটসহ প্রায় ২ শতাধিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করেছে রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (রাজউক)। আজ সোমবার বেলা ১১টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে উত্তরা মডেল টাউনের পশ্চিম থানার সোনারগাঁও জনপথ সড়কের ১৩ নম্বর সেক্টরের প্রায় ১৫টি প্লটে অভিযান চালিয়ে এসব স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়। রাজউকের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জেসমিন আক্তার এই অভিযানে নেতৃত্ব দেন। প্রসঙ্গত, গত ২৩ অক্টোবর প্রথম দফায় উত্তরা ১১ ও ১৩ নম্বর সেক্টরে উচ্ছেদ অভিযান চালানো হয়।

ম্যাজিস্ট্রেট জেসমিন আক্তার সাংবাদিকদের বলেন, আজ সোমবার বেলা ১১টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত উত্তরা মডেল টাউনের পশ্চিম থানার সোনারগাঁও জনপথ সড়কের ১৩ নম্বর সেক্টরের ৪৩, ৪৫, ৪৭, ৫৯, ৬০, ৬১, ৬৫, ৬৬, ৬৭ নম্বরসহ প্রায় ১৫টি প্লটে অবৈধভাবে গড়ে উঠা বসতি ও বিভিন্ন স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। এর মধ্যে সরকারি প্লটে অবৈধভাবে গড়ে উঠা আধাপাকা মার্কেট, উত্তরা মডেল টাউন কাঁচাবাজার, ফার্নিচার মার্কেট, খাবারের হোটেল, চা-দোকান, গ্লাসের দোকান, ভাঙ্গারী দোকানসহ প্রায় ২ শতাধিক স্থাপনা ছিল।

রাজউকের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আরও বলেন, গত ২৩ অক্টোবর প্রথম দফায় উত্তরা ১১ ও ১৩ নম্বর সেক্টরে উচ্ছেদ অভিযান চালানো হয়। তখন ব্যবসায়ীরা সময় চাইলে তাদেরকে তিন দিনের সময় বেঁধে দেয়া হয়েছিল। তাঁরা এই বেঁধে দেয়া সময়ের মধ্যে অবৈধ স্থাপনা গুলো সরিয়ে না নেওয়ায় দ্বিতীয় দফায় আজ অবৈধ মার্কেট ও স্থাপনা গুলো বুলডোজার দিয়ে ভেঙ্গে গুঁড়িয়ে দেয়া হয়। এটি রাজউকের একটি ধারাবাহিক অভিযান। পর্যায়ক্রমে এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।

জসমিন আক্তার জানান, প্রতি কাঠা জমির মূল্য প্রায় সাড়ে তিন কোটি টাকা। এতে করে অবৈধ দখলদারদের কাছ থেকে প্রায় পাঁচ থেকে ৬০০ কোটি টাকা মূল্যে সম্পত্তি উদ্বার করা হয়েছে।

উত্তরা পশ্চিম থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. জাকির হোসেন বলেন, রাজউকের এই উচ্ছেদ অভিযানে প্রায় ২ প্লাটুন পুলিশ দায়িত্ব পালনে নিয়োজিত ছিল।

সম্পাদনা: আরএ/আরবি/এসএ

শেয়ার করুন