আমাদের মেইল করুন abasonbarta2016@gmail.com
নবায়নযোগ্য শক্তি ছড়াতে তিন দিনব্যাপী প্রযুক্তি মেলা

নবায়নযোগ্য শক্তি ছড়িয়ে দিতে রাজধানী ঢাকায় শুরু হয়েছে তিন দিনব্যাপী আন্তর্জাতিক কর্মশালা ও প্রযুক্তি মেলা। ‌’নবায়নযোগ্য শক্তি ব্যবহার উন্নত জীবনের অঙ্গীকার’ এই স্লোগানে রোববার (১৯ নভেম্বর) থেকে রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে শুরু হওয়া এই কর্মশালা ও প্রযুক্তি মেলা চলবে আগামী ২১ নভেম্বর পর্যন্ত।

১৫টি দেশের ৫০ জন প্রতিনিধি এবং বাংলাদেশের ৮০ জন প্রতিনিধি এই কর্মশালায় অংশ নেবে। এছাড়া, মেলায় দেশ-বিদেশের ৩৫টি স্টল রয়েছে, যারা সৌর প্যানেল, ব্যাটারি, সড়কবাতি ও সংশ্লিষ্ট পণ্য প্রদর্শন করছে। রহিম আফরোজ, সুপার স্টার গ্রুপ, জেকো ব্যাটারি, পারসোনাল এনার্জি লিমিটেড, জি-টেক সলিউশন লিমিটেডসহ অন্যান্য প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের পণ্য নিয়ে এসেছে প্রদর্শনীতি। প্রতিদিন সকাল সাড়ে ৯টা থেকে রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত প্রদর্শনী সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে।

রোববার সকালে রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে ইনফ্রাস্ট্রাকচার ডেভেলপমেন্ট কোম্পানি লিমিটেড (ইডকল) আয়োজিত কর্মশালা ও প্রযুক্তি মেলার উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রীর জ্বালানি উপদেষ্টা তৌফিক-ই-এলাহী চৌধুরী। অনুষ্ঠান সহযোগিতায় জার্মান ডেভেলপমেন্ট কো-অপারেশন (কেএফডব্লিউ) এবং সহ-আয়োজক হিসেবে রয়েছে নেপালের সরকারি সংস্থা অলটারনেটিভ এনার্জি প্রমোশন সেন্টার।

আয়োজকরা জানান, কর্মশালায় নবায়নযোগ্য শক্তি নিয়ে কর্মরত ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান নিয়ে একটি প্লাটফর্ম তৈরিতে বিভিন্ন জ্ঞান ও ভাবনা বিনিময়, নবায়নযোগ্য প্রযুক্তির বাজার সম্প্রসারণ, অর্থায়ন, নিয়ন্ত্রণ ও বিভিন্ন নীতিগত দিক নিয়ে আলোচনা হবে। এর মাধ্যামে বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়নের বাধা দুর করাই এই আয়োজনের মূল উদ্দেশ্যে।

কর্মশালার উদ্বোধনী বক্তব্যে জ্বালানির সঠিক ব্যবহার নিশ্চিত করতে প্রতিবেশি দেশগুলোকে এর সুষম বন্টনের দিকে নজর দেওয়া আহ্বান জানান উপদেষ্টা তৌফিক-ই-এলাহী। তিনি বলেন, বিদ্যুৎ জ্বালানোর উৎস একেক দেশে একেক রকম হতে পারে। বাংলাদেশে সৌর জ্বালানির ব্যবহার আরও বাড়ানোর সুযোগ রয়েছে।

তৌফিক-ই-এলাহী বলেন, নেপালে বর্ষকালের তুলনায় শীতকালে বিদ্যুতের হাইড্রেলিক উৎপাদন কমে যায়। ফলে তারা বর্ষায় বাংলাদেশে বিদ্যুৎ সরবরাহ করতে পারে। আবার শীতকালে প্রয়োজনে এই অঞ্চল থেকে বিদ্যুৎ নিতে পারে। এভাবে প্রয়োজনে ভারত, ভুটানসহ অন্যান্য দেশগুলোও তাদের মধ্যে বিদ্যুৎ শেয়ার করে এর সুফল পেতে পারে।

সাসটেইনেবল অ্যান্ড রিনিউয়েবল এনার্জি কর্তৃপক্ষ স্রেডার চেয়ারম্যান হেলাল উদ্দিন, কেএফডব্লিউর পরিচালক রেজিনা মারিয়া স্নেইডার, ইডকলের নির্বাহী পরিচালক মাহমুদ মালিক, নেপালের এইপিসির পরিচালক নাওয়া রাজ ঢাখিল অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন।

সম্পাদনা: টিআর/আরএ/জেডএইচ

মন্তব্য