আমাদের মেইল করুন abasonbarta2016@gmail.com
ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয়ে রিয়েল এস্টেট বিষয়ে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রি লাভের সুযোগ

অন্ন, বস্ত্রের পরই নাগরিকদের মৌলিক চাহিদা আবাসন। নিজের একটা বাসস্থান মানুষের স্থিতিশীলতা, আত্মমর্যাদা এবং ব্যাক্তিত্বকে অনেকগুণ বাড়িয়ে দেয়। তাই মানুষের এই আবাসন চাহিদা মেটাতেই কাজ করে যাচ্ছে রিয়েল এস্টেট সেক্টর। বিশ্বের বিভিন্ন দেশ এই বিষয়ে তাদের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে গড়ে তুলেছে দক্ষ জনশক্তি। যারা আবাসন খাতে নিয়ে আসছে নতুনত্ব। তৈরি করছে আরামদায়ক ও দৃষ্টিনন্দন আবাসন। তারা আবাসন সংক্রান্ত বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে কাজ করছে সুনিপনভাবে। রিয়েল এস্টেট নিয়ে Deakin University, Australia কিংবা Nottingham Trend University অথবা The University of Pennsylvania পড়ানো হয় স্নাতকোত্তর ডিগ্রি।

বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে এই বিষয়ে আমাদের দেশও পিছিয়ে নেই। আমাদের দেশে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনির্ভাসিটি (Daffodil International University) এই বিষয়ে গড়ে তুলছে দক্ষ জনবল। এখানে রয়েছে রিয়েল এস্টেট বিষয়ে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রি লাভের সুযোগ। এই বিভাগে পড়ুয়া ছাত্রদের রিসার্চ  আন্তর্জাতিক জার্নাল এ প্রকাশ পাওয়ার সুযোগ রয়েছে। ব্যাপক চাহিদা থাকায় পড়াশুনা শেষে রয়েছে ১০০% চাকুরীর সুযোগ। আপনিও দেখে আসতে পারেন আপনার আগামী দিনের পদক্ষেপের জন্য। কাজ করার সুযোগ করে নিতে পারেন পাঁচ মৌলিক চাহিদার অন্যতম আবাসন সেক্টরে।

যাত্রা শুরু ২০০৮ সাল থেকেঃ বর্তমানে আমাদের দেশে রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশেই কাজ করে যাচ্ছে বিভিন্ন রিয়েল এস্টেট কোম্পানি। তবে এ খাতের জন্য প্রয়োজনীয় দক্ষ জনবলের অভাব এখনও রয়েছে আমাদের দেশে। এ বিষয়ে উচ্চশিক্ষা ও প্রশিক্ষণ গ্রহণের জন্য খুব বেশি সুযোগও তৈরি হয়নি। চাহিদার তুলনায় তাই প্রশিক্ষিত জনবল নেই। এ বিষয়ে বিশেষায়িত ডিগ্রি লাভ করতে পারলে এ সেক্টরে ভালো ক্যারিয়ার গড়ার সুযোগ রয়েছে। শুধু বাংলাদেশ নয়, আন্তর্জাতিক বাজারেও রিয়েল এস্টেট বিষয়ে স্নাতকদের কর্মসংস্থানের সুযোগ অপরিসীম এবং অবারিত। রিয়েল এস্টেট কোম্পানির পাশাপাশি বিভিন্ন ব্যাংক-বীমা এবং আর্থিক প্রতিষ্ঠানেও কাজ করার সুযোগ রয়েছে রিয়েল এস্টেট নিয়ে পড়াশুনা করা শিক্ষার্থীদের।  এই সেক্টরে দক্ষ জনবল তৈরির লক্ষ্যেই ২০০৮ থেকে কাজ করে যাচ্ছে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি। ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি’র রিয়েল এস্টেট বিভাগ চার বছর মেয়াদি স্নাতক শিক্ষা ব্যবস্থার আওতায় ব্যাচেলর অব রিয়েল এস্টেট ডিগ্রি কার্যক্রম চালু রয়েছে। দেশের বৃহত্তর জনগোষ্ঠীর নিরাপদ আবাসন নিশ্চিত করা ও আবাসন সংকট মোকাবিলায় বিষয়ভিত্তিক লোকবল সরবরাহের ব্রত নিয়েই যাত্রা শুরু করে এই বিভাগ ।

কারা পড়বেন এই সাবজেক্ট : সাইন্স, কমার্স, আর্টস এই তিন বিভাগ থেকেই ভর্তি হতে পারবেন। যারা মূলত পড়াশোনার পরই জব পেতে আগ্রহী তাঁরা এই সাবজেক্ট এ পড়তে পারেন। এখানে পড়াশুনা শেষ করার পর প্রায় শতভাগ শিক্ষার্থী কর্মসংস্থানে প্রবেশ করছেন খুব সহজেই। রিয়েল এস্টেট সেক্টর ছাড়াও বিসিএস, ব্যাংক জব, বিভিন্ন আর্থিক প্রতিষ্ঠান, গৃহায়ন মন্ত্রণালয়সহ সব ধরনের সরকারি জবও করতে পারবেন রিয়েল এস্টেট বিষয়ে পড়াশুনা করা  শিক্ষার্থীরা।  আবাসন প্রকল্পে কাজ করতে ইচ্ছুক তাঁরাও পড়তে পারেন এই বিষয়।

কি কি পড়ানো হয় এই ডিপার্টমেন্টে: রিয়েল এস্টেট ব্যবসার পরিচিতি, মূলনীতি, আধুনিক নগরায়ন, পরিবেশ বিজ্ঞান, রিয়েল এস্টেটের সঙ্গে পরিবেশের সম্পর্ক, রিয়েল এস্টেটে বিপণন ব্যবস্থাপনা, রিয়েল এস্টেটে পরিকল্পনায় সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং ও আর্কিটেক্ট ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের মৌলিক বিষয়গুলো, রিয়েল এস্টেটে আইন, রিয়েল এস্টেটে জিআইএস, বাংলাদেশে রিয়েল এস্টেটের সমসাময়িক ইস্যু, রিয়েল এস্টেটে বিনিয়োগ ও মূল্যায়ন, রিয়েল এস্টেটে পরিসংখ্যানসহ ৪২টি বিষয় পড়ানো হয়।

চাকরির বাজারঃ এই সাবজেক্ট এর চাকরির বাজার খুবই ভালো। বাংলাদেশে আবাসন খাত দিন দিন উন্নতি হচ্ছে। আর এই বিষয়ে গ্রাজুয়েটের চাহিদা বাড়ছে। কিন্তু যে পরিমাণ চাকরি আছে, সেই পরিমাণ গ্রাজুয়েট নেই। ঢাকাসহ দেশের নানা বড় শহরে অনেক রিয়েল এস্টেট অ্যান্ড কনস্ট্রাকশন ইন্ডাস্ট্রি গড়ে উঠেছে। তাই অনেকের কাছে রিয়েল এস্টেটে ক্যারিয়ার গঠনের কদর বাড়ছে। এছাড়া, এখান থেকে ডিগ্রী নিয়ে সহজেই বিদেশে রিয়েল এস্টেট বিষয়ে ক্যারিয়ার গড়া যায়। বিদেশে রিয়েল এস্টেট বিষয়ে দক্ষ জনবলের ব্যাপক চাহিদা রয়েছে।

বিশেষ সুবিধাঃ বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, এখানে পড়ালেখার পাশাপাশি ব্যবহারিক সব কাজ করার সুবিধা থাকে। ফলে বাস্তব কাজের অভিজ্ঞতা এখান থেকেই তৈরি হয়ে যায়, যা একজন শিক্ষার্থীকে সফল ক্যারিয়ার গড়তে সর্বোচ্চ সুবিধা প্রদান করে থাকে। এছাড়াও গরীব ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের ক্ষেত্রেও ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয় বিশেষ ছাড় দিয়ে থাকে।

ভর্তির সময়ঃ জানুয়ারি, মে এবং সেপ্টেম্বর সেশনে ভর্তি হওয়া যায় এই বিভাগে।

বিদেশে উচ্চ শিক্ষার সুযোগঃ এখান থেকে পড়াশুনা শেষে দেশের গন্ডি পেরিয়ে বিদেশেও এই বিষয়ে উচ্চ শিক্ষার সুযোগ রয়েছে। কেউ চাইলে নিচের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে পড়তে পারেন এই রিয়েল এস্টেট বিষয়ে।

       Deakin University, Australia

       Nottingham Trend University

       The University of Pennsylvania

       The University of Melbourne

       New York University

       University of British Columbia

       University of Virginia & 1000 plus university

দক্ষিণ এশিয়ার নিচের এই দুই বিশ্ববিদ্যালয়েও উচ্চ শিক্ষার জন্য পড়তে পারেন রিয়েল এস্টেট বিষয়ে।

       University of Malaya

       National University, Singapore

ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনির্ভাসিটির রিয়েল এস্টেট বিভাগ সম্পর্কে যেকোন বিষয়ে জানতে যোগাযোগ করতে পারেন এই নাম্বারে (০১৬২২৬৭৭৩১১)

 

সম্পাদনা: আরবি/আরএ/এসএ

মন্তব্য