আমাদের মেইল করুন abasonbarta2016@gmail.com
ঘোষণা
আবাসন সম্পর্কিত যেকোনো নিউজ পাঠাতে পারেন আমাদের এই মেইলে- abasonbarta2016@gmail.com
যেভাবে জলছাদ বানাবেন >> ভিডিওসহ

আজ আমরা জলছাদ সম্পর্কে কিছু কথা শিখবো:-১ম প্রশ্ন জলছাদ কি? ২য় প্রশ্ন জলছাদ কেন দওয়া হয়? ৩য় প্রশ্ন জলছাদের উপকরন গুলি কি কি? ৪র্থ প্রশ্ন জলছাদ করার প্রক্রিয়া কি? ৫ম প্রশ্ন : প্রতি ঘনফুটে কি পরিমান মালামাল লাগে?

ছাদের কাজের হিসাব:
পুরুত্ব উল্লেখ পূর্বক সমাপক পৃষ্টের ক্ষেত্রফলই জলছাদের কাজের পরিমাণ ধরা হয়।অর্থাৎ প্যারাপ্যাটের ভিতরের পরিমাপ (দৈর্ঘ্য x প্রস্থ) নির্ণয় পূর্বক কাজের পরিমাণ বর্গমিটারে হিসাব করা হয়। ইমারতের নকশায় যে সমস্ত মাপ দেওয়া থাকে সে অনুযায়ী মাপ নেওয়া হয়।

ফাঁকা অংশের পরিমাপ বাদ দেওয়ার নিয়ম:
যে কোন ফাঁকা অংশ,চিমনি স্টক এর গর্ত,রুফ লাইট ইত্যাদি যার ক্ষেত্রফল ০.৪০ বর্গমিটার এর বেশি না হলে পরিমাণ বাদ দেওয়া হয় না।

ঢাল প্রদান:
ছাদের ক্ষেত্রফল প্রতি ৪০ বর্গমিটারের জন্য ১০০ মিমি ব্যাসের রেইন ওয়াটার পাইপ প্রদান করা হয়। বৃষ্টির পানির নির্গমনের দিকে ঢাল প্রদান করা হয়। সমাপক পৃষ্ঠের ঢাল সর্বনিম্ন ১:৫০ এবং সর্বোচ্চ ১:৩৬ হবে।

ঘুন্ডি প্রদান:
প্যারাপেট ওয়াল এবং ছাদের সংযোগ স্থলে লাইম কংক্রিট দ্বারা গোলকৃতি করে দেওয়াকে ঘুন্ডি বলে।ঘুন্ডি প্রদান করার জন্য লাইম কংক্রিটকে প্যারাপেটের
অভ্যন্তরে প্রবেশ করাতে হয়। সে কারণে প্যারাপেটের অর্ধপুরুত্ব পর্যন্ত ইট কেটে বের করে নেওয়া হয়।

জলছাদের কাজের জন্য প্রয়োজনীয় মালামালের তালিকা:
১.এক নম্বর ইট ভেঙ্গে সুরকি তৈরি করতে এবং প্রতি বর্গসেন্টিমিটারে ২৫ জালি বিশিষ্ঠ চালুনি অতিক্রম করবে।
২.অপদ্রব্য মুক্ত সদ্য পোড়ানো চুন প্রতি বর্গসেন্টিমিটারে ২৫ জালি বিশিষ্ঠ চালুনিতে চালাতে হবে।
৩.ইটের খোয়া লাগবে=১ ঘনমিটার, সুরকি লাগবে=০.৩৬ ঘনমিটার, চুন লাগবে=০.১৮ ঘনমিটার

১০০ বর্গফুটে মালামালের পরিমাণ:
খোয়া লাগে=৯০ cft
সুরকি লাগে=৪৫ cft
চুন লাগে= ৪০০ kg

সমাপক পৃষ্ঠের মালামাল:
প্রথম ১০০ থেকে ১২০ লিটার পানিতে ২ কেজি খয়ের ও মেথি একত্রে মিশিয়ে ফুটাতে হবে। পরে ঠান্ডা হলে ৩.৫ কেজি ঝোলাগুড় মিশিয়ে দ্রবণ তৈরি করতে হবে,প্রয়োজনীয় পরিমাণ চুন মিশাতে হবে।

ঝোলাগুড়= ১৫০ গ্রাম
খয়ের =২৫ গ্রাম
নীল = ২৫ গ্রাম

মন্তব্য