আমাদের মেইল করুন dhunatnews@gmail.com
রিহ্যাব ফেয়ারে অংশগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানের মধ্যে স্টল বরাদ্দ

আসন্ন রিহ্যাব ফেয়ার ২০১৭ তে অংশগ্রহণকারী সকল প্রতিষ্ঠানের (রিহ্যাব সদস্য, ব্যাংক, অর্থলগ্নীকারী প্রতিষ্ঠান এবং বিল্ডিং ম্যাটেরিয়াল) মধ্যে স্টল বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। এ বছর রিহ্যাব ফেয়ারে মোট ২০২টি স্টল অংশ নিচ্ছে। বুধবার (১৩ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় রাজধানীর সীমান্ত কনভেনশন সেন্টারে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে লটারির মাধ্যেমে প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে স্টল বরাদ্দ দেয় রিয়েল এস্টেট এন্ড হাউজিং অব বাংলাদেশ (রিহ্যাব)। অনুষ্ঠানে কুপন বক্স থেকে সব কোম্পানীর পক্ষ থেকে রিহ্যাবের এক শীর্ষ কর্মকর্তা স্টলের নম্বর সম্মলিত একটি করে টোকেন তোলেন। অনুষ্ঠান সভাপতিত্ব করেন রিহ্যাবের পরিচালক ও ফেয়ার স্ট্যাডিং কমিটির চেয়ারম্যান শাকিল কামাল চৌধুরী।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, কো-স্পন্সর প্রতিষ্ঠানের মধ্যে Stall Number 3 of Aakash Developments Ltd. Stall Number 19 of Eastern Housing Ltd. Stall Number 14 of Hamid Real Estate Construction Ltd. Stall Number 21 of Protik Developers Limited. Stall Number 16/18 of Assurance Developments Ltd/ Assure Development & Design Ltd. Stall Number 4 of  Japan Taguchi Construction Co. Ltd. Stall Number 15 of Amin Mohammad Lands Development Ltd.  Stall Number 10 of Rakeen Development Company (BD) Ltd. Stall Number 20 of Concord Real Estate & Development Ltd. Stall Number 08 of Anwar Landmark Ltd. Stall Number 09 of  US-Bangla Assets Ltd. Stall Number 07 of Comprehensive Holdings Ltd., Stall Number 05 of  Shubornobhumi Housing Ltd., Stall Number 22 of Purbachal Probashi Palli Limited., Stall Number 17 of Shamsul Alamin Real Estate Limited., Stall Number 01 of Building Technology & Ideas Ltd., Stall Number 12 of Navana Real Estate Ltd., Stall Number 06 of Jams Developments Ltd., Stall Number 11 of Dom-Inno Builders Ltd., Stall Number 02 of East West Property Development (Pvt.) Ltd., Stall Number 24 of Bangladesh Houde Building Finance Corporation.

Size of the Stall: The Typical Size of The Stall For The Co-Sponsors Will be16 (Length) x 8’ (Width) x 8’ (Height) & Regular Stalls Will be 8’ (Length) x 8’ (Width) x 8’ (Height).

বাকী প্রতিষ্ঠানের স্টল নম্বর পরে দেয়া হবে।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, দেশের আবাসন শিল্প খাতের সবচেয়ে বড় আয়োজন ‘রিহ্যাব ফেয়ার-২০১৭’ শুরু হচ্ছে আগামী ২১ ডিসেম্বর, বৃহস্পতিবার থেকে। ‌’স্বপ্নীল আবাসন, সবুজ দেশ লাল সবুজের বাংলাদেশ’ এই স্লোগানে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) পাঁচ দিনব্যাপী এই ফেয়ার চলবে ২৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত।  প্রতি বছরের মতো এবারো এই ফেয়ারের আয়োজন করেছে রিয়েল এস্টেট এ্যান্ড হাউজিং এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (রিহ্যাব)।  ২১ ডিসেম্বর বেলা ১১টায় বিআইসিসি’র হল অব ফেমে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে রিহ্যাব ফেয়ারের উদ্ধোধন করবেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ।

অনুষ্ঠানে আরও জানানো হয়, রিহ্যাব ফেয়ারে অংশগ্রহণকারী সকল প্রতিষ্ঠান (রিহ্যাব সদস্য, ব্যাংক, অর্থলগ্নীকারী প্রতিষ্ঠান এবং বিল্ডিং ম্যাটেরিয়াল) স্বস্ব স্টলে বরাদ্দকৃত স্টল সাইজের উপর “ইন্টেরিয়ার” এর কাজ করতে পারবে। সে ক্ষেত্রে প্রতিটি প্রতিষ্ঠানকে স্টলের উচ্চতা অবশ্যই ৮ ফিট এর মধ্যে থাকতে হবে। ২০ ডিসেম্বর, বুধবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে স্টলের কাজ শুরু করা যাবে। এবং স্টলের সকল কাজ ২১ ডিসেম্বর, বৃহস্পতিবার ফেয়ার উদ্বোধনের ৬ ঘন্টা পূর্বে সম্পন্ন করতে হবে।

পরে ফেয়ার স্ট্যাডিং কমিটির চেয়ারম্যান শাকিল কামাল চৌধুরী বলেন, ফেয়ারে অংশগ্রহণকারী প্রতিটি স্টলের উচ্চতা ৮ ফিট হতে হবে। এর বাহিরে যাওয়া যাবে না। ফেয়ার উদ্বোধনের ৬ ঘন্টা পূর্বে স্টলের সমস্ত কাজ শেষ করতে হবে। এছাড়া, কোনো স্টলে সাউন্ট সিস্টেম ব্যবহার করা যাবে না।

স্টল বরাদ্দ অনুষ্ঠানে রিহ্যাবের ভাইস প্রেসিডেন্ট (১ম) লিয়াকত আলী ভূইয়া, রিহ্যাব পরিচালক ও মেলা কমিটির চেয়ারম্যান শাকিল কামাল চৌধুরী, মেলা কমিটির কো-চেয়ারম্যান মোঃ আনোয়ারুজ্জামান, রিহ্যাব পরিচালক মোঃ আবু বকর সিদ্দিক, মোঃ ওমর ফারুক এবং মেলা কমিটির সদস্য মির্জা আনোয়ার এবং ক্যাপ্টেন মোঃ শাহ আলমসহ রিহ্যাব পরিচালনা পর্ষদের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

আগামীতে ফেয়ার আরও সুন্দর হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন রিহ্যাবের ভাইস প্রেসিডেন্ট লিয়াকত আলী ভূইয়া।

এর আগে গত নভেম্বরে “আগে আসলে আগে পাবেন” এই স্লোগানে ফেয়ারে লিংকেজ শিল্পের জন্য সীমিত সংখ্যক স্টল বরাদ্দ দিতে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে রিহ্যাব।

এদিকে, মেলার বিষয়ে বিস্তারিত তুলে ধরতে আগামী ১৭ ডিসেম্বর জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।

সম্পাদনা: আরএ/আরবি/এসকে

মন্তব্য