আমাদের মেইল করুন dhunatnews@gmail.com
প্রভাবশালীদের কবল থেকে পাহাড় রক্ষার দাবি

প্রকৃতি ও পরিবেশের সুরক্ষায় এবং মানবিক বিপর্যয় রোধে পাহাড় কাটায় জড়িত প্রভাবশালীদের কবল থেকে পাহাড় রক্ষায় প্রশাসনের জোর নজরদারির দাবী জানানো হয়েছে। একই সঙ্গে আইন অমান্যকারীদের বিরুদ্ধেও শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানানো হয়। গত মঙ্গলবার বিকালে বন্দরনগরীর চেরাগী পাহাড় মোড়ে আয়োজিত এক মানববন্ধন ও নাগরিক সমাবেশ থেকে পিপলস ভয়েস নামের একটি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ এ দাবি জানায়।

সমাবেশে পিপলস ভয়েসের সভাপতি শরীফ চৌহান বলেন, প্রশাসনের নাকের ডগায় প্রভাবশালীরা পাহাড় কাটলেও তাদের বিরুদ্ধে কোনো কার্যকর ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে না। পাহাড় কাটা বন্ধ না হওয়ায় বর্ষা মৌসুমে পাহাড় ও মাটি ধসে প্রাণহানির ঘটনা ঘটছে। এমতাবস্থায়, প্রভাবশালীদের কবল থেকে পাহাড় রক্ষায় প্রশাসনের জোর নজরদারির পাশাপাশি আইন অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানানো হয়।

শরীফ চৌহান বলেন, চট্টগ্রামে রাতের অন্ধকারে পুলিশ ও প্রশাসনের নাকের ডগায় পাহাড় কাটা হচ্ছে। খুলশীতে ইতিমধ্যে প্রায় আড়াই একর পাহাড় কেটে ফেলেছে। অথচ খুলশী থানা বা পরিবেশ অধিদপ্তর কোনো কার্যকর ব্যবস্থা নেয়নি।

পিপলস ভয়েসের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আতিকুর রহমানের সঞ্চালনায় নাগরিক সমাবেশে অন্যদের মধ্যে ট্রেড ইউনিয়ন সেন্টারের জেলা সাধারণ সম্পাদক মছিউদ্দৌলা, প্রমা আবৃত্তি সংগঠনের সভাপতি রাশেদ হাসান, রাজনীতিবিদ অমুত বড়ুয়া, পাঠাগার সংগঠক অমিতাভ সেন, শ্রমিকনেতা মোক্তার আহমদ, খেলাঘরের চট্টগ্রাম মহানগরী কমিটির সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য মোরশেদ আলম বক্তব্য দেন।

উল্লেখ্য, গত বছর ১১ থেকে ১৩ জুন ভারি বর্ষণে চট্টগ্রাম, রাঙামাটি, বান্দরবান, কক্সবাজার, খাগড়াছড়ি ও মৌলভীবাজার জেলায় পাহাড় ধসে অন্তত ১৬০ জনের মৃত্যু হয়। এর মধ্যে রাঙামাটিতেই মৃত্যু হয় ১২০ জনের ।

সম্পাদনা: জেডএইচ/এমএন/আরবি

মন্তব্য