আমাদের মেইল করুন dhunatnews@gmail.com
কর্মকর্তা-কর্মচারীর জন্য আবাসন ব্যবস্থা করা হচ্ছে

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অবকাঠামোগত সুযোগ-সুবিধা বাড়াতে প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত পদক্ষেপ বাস্তবায়ন হতে চলেছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫০ বছর অগ্রবর্তী মাস্টার প্লান অনুযায়ী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত ৪ ফেব্রুয়ারি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অনুষ্ঠানে রংপুর, বরিশাল ও চট্টগ্রামে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩টি স্থায়ী আঞ্চলিক কেন্দ্র নির্মাণের লক্ষ্যে ১৪-তলা বিশিষ্ট ডরমিটরি ভবন, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের আবাসনের জন্য প্রতিটি ১০-তলা বিশিষ্ট দুটি ভবন, ৭-তলা বিশিষ্ট আইসিটি ভবন ও ৬-তলা বিশিষ্ট সিনেট ভবনের ফলক উন্মোচন করেন। নানা কার্যক্রম শেষে ওই ভবনগুলো নির্মাণের জন্য মঙ্গলবার গাজীপুরস্থ বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে আনুষ্ঠানিকভাবে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠাণ মজিদ এন্ড সন্স কনস্ট্রাকশন লিমিটেডকে কার্যাদেশ প্রদান করা হয়। শীঘ্রই এসব ভবনের নির্মাণ কাজ শুরু হচ্ছে।

অনুষ্ঠানে উপাচার্য প্রফেসর ড. হারুন-অর-রশিদ বলেন, উল্লেখিত স্থাপনাসমূহ নির্মিত হলে দীর্ঘদিনের অবকাঠামোগত শূন্যতার অবসান ঘটবে এবং জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অবকাঠামোগত সুযোগ-সুবিধার দিক দিয়ে পূর্ণতা লাভ করবে। ফলে বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালন ও একাডেমিক কার্যক্রমের ক্ষেত্রে আরও গতিশীলতা আসবে।

মন্তব্য