আমাদের মেইল করুন abasonbarta2016@gmail.com
পূর্বাচল নতুন শহরে ৬০ হাজার ফ্ল্যাট বানাবে রাজউক

আধুনিক সুপরিকল্পিত স্মার্ট গ্রিন সিটি নির্মাণের লক্ষ্যে রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (রাজউক) গ্রহণ করেছে পূর্বাচল নতুন শহর প্রকল্প। এ প্রকল্পের আওতায় রাজধানী ডিটেইলড এরিয়া প্ল্যান (ড্যাপ) এলাকাভুক্ত ঢাকা জেলার খিলক্ষেত থানার ১৫০ একর, গাজীপুর জেলার কালীগঞ্জ থানার ১৫শ একর এবং নারায়ণগঞ্জ জেলার রূপগঞ্জ থানার ৪ হাজার ৫৭৭ একর (মোট ৬২২৭) জায়গার ওপর এ প্রকল্প গ্রহণ করা হয়।

পুরো প্রকল্পে নির্মাণ করা হবে ৬০ হাজার অ্যাপার্টমেন্ট। রাজউক সূত্র জানিয়েছে ইতোমধ্যে এ প্রকল্পের প্রাথমিক সব কাজ সম্পন্ন হয়েছে। খুব অল্প সময়ের মধ্যেই এটির বাস্তবায়ন শুরু হবে।

রাজউক সংশ্লিষ্টরা জানান, পূর্বাচল নতুন শহর প্রকল্পের ৮টি হাই-রাইজ অ্যাপার্টমেন্ট ব্লক ও ৯টি নিম্নআয়ের লোকদের জন্য ব্লকে সর্বমোট ৬০ হাজার অ্যাপার্টমেন্ট নির্মাণের পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। এ প্রকল্পে স্ট্যান্ডার্ড মানের অ্যাপার্টমেন্ট ১৫শ বর্গফুট থেকে ৩৫শ বর্গফুট আয়তনের স্বল্প, মধ্যম ও উচ্চবিত্তদের জন্য তিন ধরনের ফ্ল্যাট এবং শহরের কর্মজীবী নিম্নআয়ের লোকের জন্য ৪০০/৫০০ বর্গফুট আয়তনের ফ্ল্যাট নির্মাণে ভবনের উচ্চতা ২০-৫০ তলার মধ্যে রাখার প্রস্তাবনা রয়েছে। প্রকল্পে গাড়ি পার্কিং এবং সুবিধাসহ বেজমেন্ট এবং অন্যান্য নাগরিক সুবিধা অন্তর্ভুক্ত থাকবে। প্রতিটি ব্লকে পার্ক/খেলার মাঠ, মসজিদ, গভীর নলকূপ, পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা, বাগান ইত্যাদির ব্যবস্থাসহ সূর্যের আলো ও বৃষ্টির পানির যথোপযুক্ত ব্যবহারের মাধ্যমে প্রতিটি ব্লক আধুনিকভাবে গড়ে তোলা হবে।

এদিকে রাজউকের সর্বশেষ সাধারণ সভায় আলোচনার তথ্য অনুযায়ী পূর্বাচল নতুন শহর প্রকল্পের মূল অধিবাসী ও সাধারণ ক্ষতিগ্রস্তদের মধ্যে প্লটের বরাদ্দের জন্য প্রয়োজনীয় সংখ্যক প্লট সৃজনে অনুমোদন দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনের আলোকে পূর্বাচল নতুন শহর প্রকল্পের পরামর্শক প্রতিষ্ঠান ডেটা এক্সপার্টস (প্রা.) লিমিটেড কর্তৃক প্রকল্পের ১৫ ও ২৮ নং সেক্টরের হাইরাইজ অ্যাপার্টমেন্ট ব্লক থেকে ৮৯ একর জমির ওপর ১ হাজার ১৯৭টি তিন কাঠা আয়তনের প্লট সৃজনের বিষয়ে রাজউক সিদ্ধান্ত নেয়। ফলে ৫টি হাইরাইজ অ্যাপার্টমেন্ট ব্লক ও ৯টি নিম্নআয়ের লোকদের ব্লকসহ মোট ১৪টি ব্লক অ্যাপার্টমেন্ট নির্মাণের জন্য অবশিষ্ট থাকবে।

এ ক্ষেত্রে অবশিষ্ট ৩টি সেক্টরের ৫টি হাইরাইজ অ্যাপার্টমেন্ট ব্লকের মধ্যে পিপিপির মাধ্যমে একটি সেক্টরের (সেক্টর-৩), ২টি ব্লক ও নিম্নআয়ের লোকের জন্য ৬টি সেক্টরে (সেক্টর নং ৮, ৯, ১০, ১৩ এবং ২৫) ৬টি ব্লক এবং রাজউকের মাধ্যমে হাইরাইজ অ্যাপার্টমেন্টের ২টি সেক্টরের (সেক্টর নং ২ ও ৩০) ৩টি ব্লক ও নিম্নআয়ের লোকদের জন্য ৩টি সেক্টরের (সেক্টর নং-৩, ৪ ও ১৮) ৩টি ব্লকে ডিপিপি প্রণয়নের মাধ্যমে পাইলট প্রজেক্ট হিসেবে কাজটি বাস্তবায়নের সুপারিশ করা হয়, যা পিপিপি পদ্ধতিতে হাইরাইজ অ্যাপার্টমেন্ট ব্লক নির্মাণের ক্ষেত্রে একটি গাইডলাইন হিসেবে কাজ করবে।

এ অবস্থায় পূর্বাচল নতুন শহর প্রকল্পে হাইরাইজ ও নিম্নআয়ের মানুষের জন্য অ্যাপার্টমেন্ট নির্মাণের বিষয়ে ভূমি ব্যবহার নকশায় প্রদর্শিত অবশিষ্ট ৩টি সেক্টরের হাইরাইজ অ্যাপার্টমেন্ট ব্লকের মধ্যে পিপিপির মাধ্যমে একটি সেক্টরে (সেক্টর নং-৩) এবং ২টি সেক্টরে (সেক্টর নং-২ ও ৩০) রাজউক কর্তৃক ডিপিপি প্রণয়ের মাধ্যমে পাইলট প্রজেক্ট হিসেবে বাস্তবায়ন করা হবে।

একইভাবে নিম্নআয়ের লোকের জন্য ৯টি অ্যাপার্টমেন্ট ব্লকের মধ্যে পিপিপির মাধ্যমে ৬টি ব্লকে (সেক্টর-৮, ৯, ১০, ১৩, ২৫ ও ২৯) এবং ৩টি সেক্টর (সেক্টর নং-৩, ৪ ও ১৮) ব্লকে রাজউক কর্তৃক ডিপিপি প্রণয়নের মাধ্যমে পাইলট প্রকল্প হিসেবে বাস্তবায়ন করা হবে।

রাজউক সূত্র জানায়, ইতোমধ্যে পূর্বাচল নতুন শহরের প্রকল্প চূড়ান্ত করতে বেশ কয়েকজন কর্মকর্তা কাজ করছেন। তারা সব বিষয় বিচার-বিশ্লেষণ করে প্রকল্পটি চূড়ান্ত পর্যায়ে নেবেন।

এ বিষয়ে জানতে রাজউকের চেয়ারম্যান এবিএম আমিন উল্লাহ নুরী আমাদের সময়কে বলেন, কয়েকজন কর্মকর্তাকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। তারা সব কিছু যাচাই-বাছাই করে আমাদের কাছে উপস্থাপন করবেন। এর পর আমরা চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেব। আমাদেরসময়

মন্তব্য